নয়াগাঁওয়ের সংঘর্ষের ঘটনায় পৃথক দুটি মামলা দায়ের

শেয়ার করুন

সোনারগাঁ উপজেলার পিরোজপুর ইউনিয়নের নয়াগাঁও গ্রামে দুই গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনায় পৃথক দুটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। গতকাল শনিবার রাতে মামলা দুটি দায়ের করা হয়। একটি মামলা দায়ের করেন নিহত শমর আলীর ভাই আব্দুর আলী ও অপর মামলাটি দায়ের করেন সাদেকুল রহমানের স্ত্রী সেফালী বেগম।

সোনারগাঁ থানার ওসি তদন্ত তবিদ রহমান জানান, নয়াগাঁও গ্রামের দুই গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় গতকাল শনিবার রাতে দুটি পৃথক মামলা দায়ের করা হয়েছে। নিহত শমর আলী ছোট ভাই আব্দুর আলী জজ মিয়াকে প্রধান আসামী করে আরো ১৭ জনের নাম উল্লেখ করে একটি মামলা দায়ের করেন। অপরদিকে আলাউদ্দিনকে প্রধান আসামী করে ১০ জনের নাম উল্লেখ করে অপর মামলাটি দায়ের করেন আহত সাদেকুর রহমানের স্ত্রী সেফালী বেগম।

উল্লেখ, গত শুক্রবার বিকেলে পিরোজপুর ইউনিয়নের নয়াগাঁও গ্রামে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে আলাউদ্দিনের নির্দেশে তার ছেলে ইয়ানুর ও বাদলের নেতৃত্বে কয়েকজন লোক দলবদ্ধ হয়ে সাদেকুর রহমানের মুদি দোকানে হামলা করে সাদেকুরকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে। খবর পেয়ে সাদেকুরের লোকজন সাদেকুরকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে। পরে তারা আলাউদ্দিন ও তার লোকজনদের বাড়িতে হামলা করলে দুপক্ষই সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। দফায় দফায় এ সংঘর্ষে উভয়ের বাড়িঘরে হামলা চালিয়ে ভাড়িঘর ভাংচুর ও লুটপাট করে ৩০জনকে কুপিয়ে পিটিয়ে আহত করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে ব্যর্থ হয়। পরের দিন শনিবার সকালে ফের উভয় পক্ষ সংগঠিত হয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে এতে শমর আলী নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *